1. ruhul.lemon@gmail.com : admin :
  2. tanjid.fmphs@gmail.com : তানজিদ শুভ্র : তানজিদ শুভ্র
  3. contact.mdrakib@gmail.com : Rakib Howlader : Rakib Howlader
শুক্রবার, ০৪ ডিসেম্বর ২০২০, ০১:২৬ অপরাহ্ন

রাজশাহীতে প্রাইভেট ক্লিনিক বন্ধ হওয়াই, রোগীরা ছুটছেন হোমিও ডাক্তারে কাছে

  • প্রকাশ: সোমবার, ৪ মে, ২০২০
  • ৮২ বার পঠিত

মোঃসাব্বির হোসেন বিশাল,রাজশাহী প্রতিনিধিঃ করোনাভাইরাস সংক্রমণ ধরা পড়ার পর থেকেই প্রাইভেট প্র্যাকটিস বন্ধ করে দিয়েছেন রাজশাহীর চিকিৎসকরা। ফলে বন্ধ রয়েছে এখানকার বেসরকারি ক্লিনিক-ডায়াগনস্টিক সেন্টার।

এতে জরুরি সেবা নিতে রোগীরা যাচ্ছেন রাজশাহী মেডিকেল কলেজ (রামেক) হাসপাতালে। তবে সেখানেও করোনা সংক্রমণ আতঙ্ক। ফলে সাধারণ অসুখ নিয়ে হাসপাতালে যাচ্ছেন না অনেকেই। কেউ কেউ রোগ নিরাময়ে বেছে নিচ্ছেন হোমিও চিকিৎসা। ফলে আগের চেয়ে নগরীর হোমিও চিকিৎসকদের ব্যস্ততা বেড়েছে। ব্যক্তিগত সুরক্ষা নিয়েই চিকিৎসাসেবা দিচ্ছেন তারা।

হোমিও চিকিৎসকদের সংগঠন-স্বাধীনতা হোমিও প্যাথিক চিকিৎসক পরিষদ সূত্রে জানা গেছে, কেবল রাজশাহী নগরীতেই হোমিও চিকিৎসক রয়েছেন দুই শতাধিক। এদের অর্ধেকের বেশি এখন রোগী দেখছেন। সবমিলিয়ে গড়ে দিনে হাজারখানেক রোগী দেখছেন হোমিও চিকিৎসকরা। আগে হোমিও চিকিৎসকরা মোট রোগীর ৪৫ শতাংশ দেখতেন। এখন তা বেড়ে দাঁড়িয়েছে ৫০ শতাংশের উপরে।

ভয়াবহ করোনা পরিস্থিতিতেও সাত সকালে রোগী দেখা শুরু করেন নগরীর বাটারমোড়ের রাজশাহী হোমিও সিন্ডিকেটের চিকিৎসক ডা. মাহমুদ হোসেন। করোনার কারণে এখন রোগীর চাপ বেশি। প্রতিদিনই ৮০ থেকে ১০০ জন রোগী আসছেন। এদের মধ্যে নতুন রোগীই বেশি। যারা অধিকাংশই জ্বর-সর্দি-কাশি নিয়ে আসছেন। এটি করোনার প্রাথমিক উপসর্গ হলেও হোমিওতে লক্ষণ দেখে ওষুধ দিলেই সেরে যাচ্ছে।

একই ভাষ্য নগরীর মালোপাড়া এলাকার মক্কা হোমিও ফার্মেসির চিকিৎসক ডা. হুমায়ুন কবীর মিঠুর। তিনি বলেন, বরাবরই আমি ক্রণিক রোগী বেশি দেখি। কিন্তু করোনার কারণে এখন জ্বর-সর্দি নিয়ে আসছেন রোগীরা। লক্ষণ দেখে ওষুধ দিচ্ছি। উপসমও হচ্ছে।

নতুন রোগী বাড়লেও করোনা আতঙ্কে পুরনো রোগী দশভাগের এক ভাগে নেমেছে বলে জানিয়েছেন একই এলাকার সামাদিয়া হোমিও ফার্মেসির চিকিৎসক ডা. গোলাম সারোয়ার।

তিনি বলেন, করোনা পরিস্থিতিতে জটিল-কঠিন রোগীরা তাদের কাছে আসতেও সাহস পাচ্ছেন না। অনেকেই ফোন করছেন, ওষুধ চাইছেন। তারা সাধ্যমতো চিকিৎসা দিচ্ছেন। জ্বর-সর্দি নিয়ে যারা আসছেন তারা অধিকাংশই নতুন। তাদের চিকিৎসা দেয়া হচ্ছে। হোমিওতেই ভালো হচ্ছেন লোকজন।

শেয়ার করুন

এ জাতীয় আরো বার্তা..
নিঃস্বত্ত্ব © সংগৃহিত তথ্যগুলোর স্বত্ব সম্পূর্ণভাবে সোর্স সাইটের। আমাদের নিজস্ব কোন স্বত্ব নেই।

কারিগরি সহায়তায় WhatHappen